রাশিয়া-ন্যাটো যুদ্ধের শঙ্কা

0
119

ইউক্রেন-রাশিয়া চলমান যুদ্ধ শুরুর পর থেকেই বলা হচ্ছে, যুদ্ধে ন্যাটো হস্তক্ষেপ করলেই তা হবে তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ। একই কথা মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনও বলছেন। সেই চাপান-উতর গিয়ে ঠেকেছে পারমাণবিক অস্ত্র ব্যবহার ইস্যুতে। যুক্তরাষ্ট্র বারবার সতর্ক করছে যে, রাশিয়া ইউক্রেনে পারমাণবিক বা রাসায়নিক অস্ত্র ব্যবহার করতে পারে। এতদিন রাশিয়া তা অস্বীকার করে এলেও সর্বশেষ ক্রেমলিন মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ কিছুটা ভিন্ন সুরে কথা বলেছেন। তিনি বলেন, রাশিয়া এমনিতে পারমাণবিক অস্ত্র ব্যবহার করবে না, কিন্তু বাইরে থেকে আক্রমণ এলে তারা তা করতে বাধ্য হবে। এর পরই ন্যাটো মহাসচিব এ বিষয়ে পাল্টা জবাব দেওয়া শুরু করেছেন। বিবিসি এবং আল জাজিরার প্রতিবেদনে এসব কথা বলা হয়েছে।

এদিকে পেসকভ স্বীকার করেছেন, ইউক্রেনে ‘বিশেষ অভিযানের’ চার সপ্তাহ হতে চললেও এখন পর্যন্ত মস্কো তার সামরিক লক্ষ্য অর্জন করতে পারেনি। একই সঙ্গে চলমান যুদ্ধে পরমাণু অস্ত্র ব্যবহার করা হবে না, এমন প্রতিশ্রুতি দিতেও অস্বীকৃতি জানিয়েছেন তিনি। তার কথায় মস্কো যদি অস্তিত্বের হুমকিতে পড়ে, তা হলে পরমাণু অস্ত্র ব্যবহার করতে পারে। মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএনকে দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি এ কথা বলেন।

এমন পরিস্থিতিতে কয়েকদিন আগে ইউক্রেনে শান্তিরক্ষী পাঠানোর কথা বলেছিল পোল্যান্ড। পোল্যান্ড হলো ন্যাটোভুক্ত দেশের সদস্য। পোল্যান্ড শান্তিরক্ষী পাঠানোর অর্থ হচ্ছে যুদ্ধক্ষেত্রে ন্যাটো প্রবেশ করা। এ কারণে এর তীব্র প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছে ক্রেমলিন। ক্রেমলিন জানিয়েছে, এ ধরনের পদক্ষেপ রুশ সেনা ও ন্যাটো বাহিনীকে মুখোমুখি দাঁড় করাবে- যে সংঘর্ষের পরিণাম হবে ভয়াবহ। পেসকভ আরও বলেন, ইউক্রেনে শান্তিরক্ষী পাঠানোর পোল্যান্ডের চিন্তা ‘বেপরোয়া’ ও খুবই বিপজ্জনক। পেসকভের কথায়, ন্যাটো ও আমাদের সেনাদের সম্ভাব্য মুখোমুখি লড়াইয়ের পরিণাম হবে ভয়াবহ- যা ঠিক করা কঠিন হবে।

এদিকে পূর্ব ইউরোপের চারটি দেশে নতুন করে সেনা মোতায়েন করবে বলে জানিয়েছে ন্যটোর মহাসচিব জেনস স্টোলটেনবার্গ। তিনি বলেন, স্লোভাকিয়া, হাঙ্গেরি, বুলগেরিয়া ও রোমানিয়ায় নতুন করে সেনা মোতায়েন করা হবে। তিনি আরও বলেন, আঞ্চলিক নিরাপত্তা ও স্থিতিশীলতা বজায় রাখার লক্ষ্যে এটি করা হচ্ছে। একই সঙ্গে স্টোলটেনবার্গ আরও বলেন, রাশিয়াকে অবশ্যই পরমাণু হামলা থেকে বিরত রাখতে হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here