রাশিয়ার সদস্যপদ স্থগিত, ভোট দেয়নি বাংলাদেশ

0
62

ইউক্রেনে হামলা ইস্যুতে মানবাধিকার পরিষদে রাশিয়ার সদস্যপদ স্থগিত করেছে জাতিসংঘ। গত বৃহস্পতিবার জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে এ সংক্রান্ত একটি প্রস্তাব গৃহীত হয়। এতে ৯৩ দেশ প্রস্তাবের পক্ষে ভোট দেয়। তবে বাংলাদেশ, ভারতসহ দক্ষিণ এশিয়ার সব দেশসহ মোট ৫৮টি দেশ ভোটদানে বিরত ছিল। এ ছাড়া পক্ষে চীনও ভোট দেয়নি। জাতিসংঘের ওয়েবসাইটে এ সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ইউক্রেনের যুদ্ধের ওপর একটি বিশেষ জরুরি অধিবেশন ও রুশ বাহিনীর দ্বারা সংঘটিত মানবাধিকার লঙ্ঘন রিপোর্ট অনুসরণ করে জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদে একটি প্রস্তাব গৃহীত হয়েছে। যেখানে আবেদন করা হয়েছে মানবাধিকার পরিষদে রাশিয়ার সদস্যপদ স্থগিতের। উত্থাপিত রেজুলেশনে ১৯৩ সদস্যের মধ্যে প্রস্তাবের পক্ষে ভোট দেয় ৯৩টি দেশ, বিপক্ষে ভোট পড়ে ২৪টি। এ ছাড়া ৫৮ দেশ ভোটদানে বিরত ছিল। জাতিসংঘের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত সপ্তাহে ইউক্রেনের শহর বুচায় ভয়ঙ্কর সব ছবি উঠে এসেছে। রাশিয়া ওই এলাকা থেকে চলে যাওয়ার পর রাস্তায় ও গণকবরে শত শত বেসামরিক মানুষের মরদেহ পাওয়া গেছে। জাতিসংঘে এ সংক্রান্ত ভোটের আগে ইউক্রেনের রাষ্ট্রদূত সের্গি কিসলিয়েস সদস্য রাষ্ট্রগুলোকে রেজুলেশনে সমর্থন করার আহ্বান জানান।

যদিও প্রস্তাবের পক্ষে ভোট না দেওয়া দেশগুলো বলছে, রাশিয়ার বিরুদ্ধে এই পদক্ষেপ জাতিসংঘ ও মানবাধিকার পরিষদের বিশ্বাসযোগ্যতাকে ক্ষুণ্ন করবে। আবার অনেকেই বলছেন, মানবাধিকার পরিষদের এ সিদ্ধান্ত যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপীয় ভূরাজনৈতিক এজেন্ডাকে বাস্তবায়িত করছে।

এদিকে ভোটের পর জাতিসংঘে রাশিয়ার ডেপুটি অ্যাম্বাসেডর গেনাডি কুজমিন দাবি করেছেন, পরিষদের সিদ্ধান্তের আগেই মানবাধিকার কাউন্সিল থেকে তারা নিজেদের নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছেন। তিনি মানবাধিকার পরিষদের বিরুদ্ধে স্বল্পমেয়াদি রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক স্বার্থ নিয়ে কাজ করার অভিযোগ করেন। খবর ইউএনবির।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here